পেকুয়ায় টর্নেডোর আঘাতে ৩৪ বসতঘর বিধ্বস্ত

বৃহস্পতিবার, ১১ জুলাই ২০১৯ | ১০:৫০ পূর্বাহ্ণ | 160 বার

পেকুয়ায় টর্নেডোর আঘাতে ৩৪ বসতঘর বিধ্বস্ত

পেকুয়ায় টর্নেডোর আঘাতে ৩৪ বসত ঘর বিধ্বস্ত হয়েছে। উপজেলার পৃথক দুটি ইউনিয়নের তিন গ্রামের উপর দিয়ে বয়ে যায় শক্তিশালী টর্নেডো। হঠাৎ এ শক্তিশালী টর্নেডোর আঘাত আনে ওইসব গ্রামে।

বুধবার ৯জুলাই দুপুরে উজানটিয়া ইউনিয়নের ফেরাসিংগা পাড়া, ষাড়ধুনিয়া পাড়া, বাজার পাড়া এবং অপর দিকে একই সময়ে মগনামা ইউনিয়নের কালার পাড়াসহ একাধিক পাড়ার উপর দিয়ে বয়ে গিয়ে ব্যাপক আঘাত এনেছে।
স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান টর্নেডোর আঘাতে রেজিয়া নামের এক গৃহবধু আহত হয়েছে। প্রবল বাতাসে দোলনাসহ এক শিশুকে ওড়িয়ে নিয়ে পুকুরে ফেলে দেয়। তাৎক্ষনিকভাবে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে। ফলে অল্পর জন্য অক্ষত থাকে ওই শিশুটি।

উজানটিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম চৌধুরী জানান, আমার ইউনিয়নে ৭টি বাড়ী সম্পূর্ন বিধ্বস্ত হয়েছে। ২৮টি বসতঘর আংশিক ক্ষতি হয়েছে। ওই সব বসতঘরের লোকজন বর্তমানে খোলা আকাশের নিচে দিনযাপন করছে। প্রবল ঘূর্ণিপাকের আঘাতে জাফর আলম, নুরুল আলম, বেলাল হোসেন, আবুল হাসেম, আবুল হোসেন, শহিদুল্লাহ, আব্দু শক্কুর, জালাল আহমদের বসতবাড়ি সম্পুর্ন বিধ্বস্ত হয়েছে। ষাড়ধুনিয়া পাড়া ও বাজার পাড়া এলাকার আরাফা বেগম, আব্দু শুক্কুর, নন্না মিয়া, রবি আলম, মোঃ হোসাইনের বসত বাড়ি আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত পরিমান প্রায় ৫০ লক্ষাধিক টাকা বলে ধরনা করা হচ্ছে।
এদের অধিক লোক গরীব ও অসহায় বলে জানিয়েছেন ইউপি চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম চৌধুরী।

অপর দিকে মগনামা ইউপি চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ চৌধুরী ওয়াসিম বলেন, টর্নেডো আঘাতে আমার ইউনিয়নের কালার পাড়া এলাকায় অন্তত ৬টি বসতঘর সম্পূর্ণ বিধ্বস্ত হয়েছে। আমি ওই সব বিধ্বস্ত পরিবার লোকজনের সাথে কথা বলেছি। তবে আমার এলাকায় হতাহতের ঘটনা ঘঠেনি।

এদিকে খবর পেয়ে তাৎক্ষনিকভাবে ঘটনাস্থল পরিদর্শনে যান উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ মাহবুব উল করিম। এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা সৌভ্রাত দাশ, উজাটিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম চৌধুরী ও মগনামা ইউপি চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ চৌধুরী ওয়াসিম।

ইউএনও মাহবুব উল করিম বলেন, বাতাসের প্রবল ঘূর্ণিপাকের কারণে টর্নেডোর আকার ধারণ করে । এটি উজানটিয়া ও মগনামা ইউনিয়নের উপর দিয়ে বয়ে গিয়ে ব্যাপক আঘাত এনেছে। এসময় ওইস ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। শিঘ্রই ক্ষতিগ্রস্থদের পুঃর্নবাসন করা হবে।

দৈনিক দৈনন্দিন এ প্রকাশিত কোন ছবি,সংবাদ,তথ্য,অডিও,ভিডিও কপিরাইট আইনে অনুমতি ব্যতিরেখে ব্যবহার করা যাবে না ।

Copyright @ 2019

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!