চেয়ারম্যান তারেক শরীফের ব্যতিক্রম উদ্যোগে সর্বত্র প্রশংসা

মঙ্গলবার, ০৫ মে ২০২০ | ৭:২৩ অপরাহ্ণ | 284 বার

চেয়ারম্যান তারেক শরীফের ব্যতিক্রম উদ্যোগে সর্বত্র প্রশংসা

চলমান বৈশ্বিক সংকট করোনাভাইরাস মোকাবেলায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সুবিধার্থে মহেশখালী-বদরখালী সংযোগ সেতুর পূর্বপাশে নিজস্ব অর্থায়নে ‘চেকপোস্ট’ নির্মাণের উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন কালারমারছড়া ইউনিয়ন পরিষদের জনপ্রিয় চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফ। অপরদিকে তরুণ এই চেয়ারম্যানের উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন সর্বস্তরের মানুষ। এ কারণে সর্বমহলে প্রশংসায় ভাসছেন তিনি।
সম্প্রতি করোনা সংকটের কারণে সারাদেশে কার্যত লকডাউন ঘোষণা করে সরকার। এই সংকট মোকাবেলায় নড়েচড়ে বসে মহেশখালী উপজেলা প্রশাসন। নেয়া হয় বিভিন্ন পদক্ষেপ। গেল কিছুদিন আগে উপজেলার মাসিক আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় বদরখালী-মহেশখালী সংযোগ সেতুর পাশে স্থাপিত চেকপোস্টে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের অবস্থান নেয়ার স্থায়ী কোন ব্যবস্থা না থাকার বিষয়টি উপস্থিত নেতৃবৃন্দের নজরে আসে।
সভায় সবার মতামতের ভিত্তিতে এবং প্রশাসনের সুবিধার্থে কালারমারছড়া ইউপি চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফ ব্যক্তিগত অর্থায়নে চেকপোস্ট নির্মাণ করার ঘোষণা দেন। যা বর্তমানে বদরখালী সেতুর পূর্বপাশে দুই কক্ষ বিশিষ্ট চেকপোস্ট নির্মাণের কাজ চলমান রয়েছে।
চেকপাস্ট নির্মাণ প্রসঙ্গে কালারমারছড়া ইউপি চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফ জানান, “যেহেতু চলমান করোনা সংকটের কারণে মহেশখালীতে গমন-বর্হিগমনে বিধিনিষেধ আরোপ করে মহেশখালী-বদরখালী সংযোগ সেতুতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৎপরতার পাশাপাশি চেকপোস্ট স্থাপন করা হয়েছে। কিন্তু ওই এলাকায় দায়িত্বপালনকারী আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের বসা কিংবা অবস্থান নেয়ার কোন সুযোগ সুবিধা নেই। এই সংকটের বিষয়টি সম্প্রতি মহেশখালী উপজেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় উত্থাপন হলে এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে আমি ব্যক্তিগত অর্থায়নে দুই কক্ষ বিশিষ্ট চেকপোস্ট নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছি।”
তারেক শরীফ আরও বলেন “আমি আশাবাদী স্থায়ী এই চেকপোস্ট নির্মাণের ফলে আইনশৃঙ্খলার আরো উন্নতির পাশাপাশি অপরাধ নিয়ন্ত্রণে জোরালো ভুমিকা রাখতে সক্ষম হবেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।”
অপরদিকে তরুণ এই চেয়ারম্যানের ব্যতিক্রমী এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন। প্রশংসায় কুড়িয়েছেন সর্বত্র। আবার অনেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তারেক শরীফকে অভিনন্দন জানিয়ে নিজেদের মতামত ব্যক্ত করছেন।
জানা গেছে, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার থেকে চকরিয়া হয়ে সড়কপথে মহেশখালী প্রবেশদ্বার মহেশখালী-বদরখালী সংযোগ সেতু। এই সেতুকে কেন্দ্র করে যোগাযোগের আমুল পরিবর্তন যেমন হয়েছে তেমনি ভাগ্যোন্নয়ন হয়েছে উপকুলীয় মানুষের। কিন্তু মহেশখালী প্রবেশমুখে এতদিন কোন ধরনের আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তদারকি ছিলনা। ছিলনা কোন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর চেকপোস্টও।

দৈনিক দৈনন্দিন এ প্রকাশিত কোন ছবি,সংবাদ,তথ্য,অডিও,ভিডিও কপিরাইট আইনে অনুমতি ব্যতিরেখে ব্যবহার করা যাবে না ।

Copyright @ 2020

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!