করোনাভাইরাস: আরও ৪২ জনের মৃত্যু

শুক্রবার, ০৩ জুলাই ২০২০ | ৪:২৮ অপরাহ্ণ | 40 বার

করোনাভাইরাস: আরও ৪২ জনের মৃত্যু

শুক্রবার সকাল ৮টা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় ৩ হাজার ১১৪ জনের মধ্যে সংক্রমণ ধরা পড়েছে। তাতে দেশে এ পর্যন্ত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ লাখ ৫৬ হাজার ৩৯১ জনে।

আইডিসিআরের ‘অনুমিত’ হিসাবে বাসা ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আরও ১ হাজার ৬০৬ জন রোগী সুস্থ হয়ে উঠেছেন গত ২৪ ঘণ্টায়। তাতে সুস্থ রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল মোট ৬৮ হাজার ৪৮ জনে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত বুলেটিনে যুক্ত হয়ে অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক নাসিমা সুলতানা শুক্রবার দেশে করোনাভাইরাস পরিস্থিতির এই সবশেষ তথ্য তুলে ধরেন।

বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের প্রথম সংক্রমণ ধরা পড়েছিল ৮ মার্চ, বৃহস্পতিবার তা দেড় লাখ পেরিয়ে যায়।

আর ১৮ মার্চ বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে প্রথম মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। এখন তা পৌঁছে গেছে দুই হাজারের কাছাকাছি।

নাসিমা সুলতানা বলেন, গত এক দিনে যারা মারা গেছেন, তাদের মধ্যে ৩২ জন পুরুষ এবং ১০ জন নারী। ৩১ জন হাসপাতালে এবং ১১ জন বাড়িতে মারা গেছেন।

এই ৪২ জনের মধ্যে ৩ জনের বয়স ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে। এছাড়া ৭ জনের বয়স ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে, ১১ জনের বয়স ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে, ১১ জনের বয়স ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে, ৫ জনের বয়স ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে, ১ জনের বয়স ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে, ৩ জনের বয়স ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে এবং একজনের বয়স ছিল ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে।

তাদের মধ্যে ১৮ জন ঢাকা বিভাগের, ১০ জন চট্টগ্রাম বিভাগের, ৩ জন খুলনা বিভাগের, ৩ জন রাজশাহী বিভাগের, ৪ জন রংপুর বিভাগের, ৩ জন সিলেট বিভাগের এবং ১ জন বরিশাল বিভাগের বাসিন্দা ছিলেন।

দেশে এ পর্যন্ত যারা মারা গেছেন, তাদের মধ্যে ৮৫৫ জনের বয়স ছিল ৬০ বছর বা তার বেশি। ১২ জনের বয়স ১০ বছরের কম।

এছাড়া ২৩ জনের বয়স ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে, ৭০ জনের বয়স ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে, ১৪৭ জনের বয়স ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে, ২৯০ জনের বয়স ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে, ৫৭১ জনের বয়স ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ছিল বলে জানান নাসিমা সুলতানা।

নাসিমা সুলতানা জানান, ইউনিভার্সাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে কোভিড-১৯ পরীক্ষা শুরু হওয়ায় দেশে এখন মোট ৭১টি পরীক্ষাগারে নমুনা পরীক্ষার সুযোগ হয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় এর মধ্যে ৬৩টি ল্যাবে ১৪ হাজার ৬৫০টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে; এ পর্যন্ত দেশে পরীক্ষা হয়েছে ৮ লাখ ১৭ হাজার ৩৪৭টি নমুনা।

২৪ ঘণ্টায় পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ২১ দশমিক ২৬ শতাংশ। শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বিবেচনায় সুস্থতার হার ৪৩ দশমিক ৫১ শতাংশ, মৃতের হার ১ দশমিক ২৬ শতাংশ।

দৈনিক দৈনন্দিন এ প্রকাশিত কোন ছবি,সংবাদ,তথ্য,অডিও,ভিডিও কপিরাইট আইনে অনুমতি ব্যতিরেখে ব্যবহার করা যাবে না ।

Copyright @ 2020

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!