আইনি পথ ছাড়া খালেদার মুক্তি অসম্ভব: হাছান মাহমুদ

বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯ | ২:১৮ অপরাহ্ণ | 296 বার

আইনি পথ ছাড়া খালেদার মুক্তি অসম্ভব: হাছান মাহমুদ

আইনি পথই বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির একমাত্র পথ, অন্য কোনো পথে তাঁর মুক্তি সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

বুধবার (১৯ জুন) নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। বাংলাদেশের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর র‌্যাংকিংয়ে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় প্রথম স্থান অধিকার করায় এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে বিশ্ববিদ্যালয়টি।

হাছান মাহমুদ বলেন, ‘বিএনপির আন্দোলনের কথা তো আমরা গত ১০ বছর ধরে শুনছি। প্রতি ঈদের পর বলে, রমজানের পর বলে, কোরবানির পর বলে, বার্ষিক পরীক্ষার পর বলে, বৃষ্টির পর বলে ও রোদ একটু কমলে পরে আন্দোলন করবে বিএনপি এই কথাও বলে। এগুলো শুনতে শুনতে দেশে মানুষের কাছে তাদের বক্তব্যগুলো হাস্যকর হয়ে গেছে।’

তিনি বলেন, ‘বিএনপির প্রতি অনুরোধ জানাব, খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে তারা যেন আন্দোলনের পথে না হেঁটে আইনি পথে হাঁটে। ইতোমধ্যে তারা আইনি পথে বেশ সাফল্য পেয়েছে। খালেদা জিয়া কয়েকটি মামলায় জামিনও পেয়েছেন। সুতরাং আইনি পথেই খালেদা জিয়ার একমাত্র মুক্তির পথ, অন্য কোনো পথে সম্ভব নয়।’

আন্তর্জাতিক র‌্যাংকিংয়ে বাংলাদেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর তালিকা না থাকার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘যোগাযোগের অভাবে আমাদের কোনো বিশ্ববিদ্যালয় আন্তর্জাতিক র‌্যাংকিংয়ে স্থান করে নিতে পারেনি। যে সমস্ত দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে র‌্যাংকিংয়ে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে, এর তুলনায় আমাদের দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো অনেক ভালো।’

তিনি বলেন, ‘আমি বিদেশের বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেছি। বাংলাদেশের কয়েকটি সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে খণ্ডকালীন শিক্ষক হিসেবে শিক্ষাদান করেছি। আমার মনে হয়েছে যোগাযোগের কারণে এই তালিকায় আমাদের দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো স্থান করে নিতে পারেনি।’

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের টিউশন ফির বিষয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়গুলো তাদের কার্যক্রম পরিচালনার জন্য টিউশন ফি নিতে হয়। তবে আমার জানামতে বাংলাদেশের অনেক প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় দরিদ্র শিক্ষার্থীদের ফ্রি শিক্ষাদান করে থাকে। নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ও বলেছে এই বিষয়ে তাদের কার্যক্রম রয়েছে। আমি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর কাছে আবেদন জানাবো দরিদ্র মেধাবী শিক্ষার্থীদের জন্য যেন তারা এ ধরনের আরও কর্মসূচি রাখে।’

দৈনিক দৈনন্দিন এ প্রকাশিত কোন ছবি,সংবাদ,তথ্য,অডিও,ভিডিও কপিরাইট আইনে অনুমতি ব্যতিরেখে ব্যবহার করা যাবে না ।

Copyright @ 2020

Development by: webnewsdesign.com

error: Content is protected !!